‘আপনাদের জেলে পাঠানো উচিত’, NRC-কর্তাকে কড়া ধমক শীর্ষ আদালতের

এসবিবি : অসমের NRC নিয়ে মিডিয়ায় সাক্ষাতকার দেওয়ায় সুপ্রিম কোর্টে ভর্ৎসিত হলেন NRC-র কো-অর্ডিনেটর প্রতীক হাজেলা ও রেজিস্ট্রার জেনারেল শৈলেশ। রুটিন ধমক নয়, ক্ষুব্ধ শীর্ষ আদালত বলেছে, এ অপরাধে তাঁদের জেলে পাঠানো উচিত ছিলো।
অসমে NRC প্রকাশের পর এনিয়ে রাজনৈতিক বিতর্ক  যখন তুঙ্গে সেসময় বেফাঁস মন্তব্য করে সংবাদমাধ্যমে হাজেলা বলেছিলেন, “যেসব মানুষের নাম নাগরিকপঞ্জী থেকে বাদ পড়েছে তারা নতুন করে নথি দিয়ে তালিকায় নাম তুলতে পারবেন।” তিনি আরও বলেন, “ওই তালিকা এখনও প্রাথমিক অবস্থায় রয়েছে। 40 লাখ মানুষ অনুপ্রবেশকারী হতে পারে না।” বস্তুত,
সুপ্রিম কোর্টের তদারকিতে ওই NRC-র কাজ চলছে।

এর দায়িত্বে থাকা আধিকারিকের মন্তব্য সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হতেই প্রবল ক্ষুব্ধ শীর্ষ আদালত। মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্টে হাজেলাকে প্রশ্ন করা হয়, কোন ক্ষমতাবলে তিনি প্রকাশ্যে ওই মন্তব্য করেছেন। ওই মন্তব্যের জন্য আপনাদের জেলে পাঠানো উচিত।
এদিন হাজেলা ও শৈলেশকে বিচারপতি বলেন, ‘ভুলবেন না আপনারা আদালত নি‌যুক্ত আধিকারিক মাত্র। আপনাদের কাজ হল NRC তৈরি করা, সংবাদমাধ্যমের কাছে ‌যাওয়া নয়।’  সংবাদপত্রে  হাজেলার সাক্ষাতকারের একটি কপিও তুলে ধরে দেখান বিচারপতি। ভবিষ্যতে সংবাদমাধ্যমে মন্তব্য করার আগে আদালতের অনুমতি নিতে হবে বলে সাফ জানিয়ে দেন বিচারক।
শীর্ষ আদালতে তীব্র ধমক খেলে শর্তহীন ক্ষমা চেয়ে নেন হাজেলা।