ফের বিপ্লব দেব, এবার বিতর্ক বাধালেন কি নিয়ে, পড়ুন

এসবিবি, আগরতলাঃ ফের বিতর্কে ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব। এবার ড্রেস কোড নিয়ে তাঁর সরকারি নির্দেশে সকলে স্তম্ভিত। নতুন নির্দেশে বলা হয়েছে সরকারি অফিসার ও কর্মচারীরা অফিসে জিন্স প্যান্ট, কার্গো প্যান্ট এবং কালো চশমা পরতে পারবেন না। গত 20 আগস্ট এই নির্দেশ সরকার জারি করেছে। মুখ্য সচিব সুশীল কুমার জানিয়েছেন, সরকারি বৈঠকের সময় ক্যাজুয়াল ড্রেস অর্থাৎ জিন্স অথবা কার্গো প্যান্ট এবং সানগ্লাস পরতে পারবেন না। বৈঠক চলাকালীন মোবাইল ব্যবহারও করা যাবে না। আরও নির্দিষ্ট করে বলা হয়েছে, মুখ্যমন্ত্রী, উপমুখ্যমন্ত্রী এবং সচিবদের বৈঠকে অবশ্যই এই নির্দেশ মেনে চলতে হবে। এই নির্দেশের জেরে কর্মচারী মহলে ব্যাপক বিতর্ক তৈরি হয়েছে। প্রত্যেকের বক্তব্য সরকারি অফিস স্কুল নয়। পোশাকের সঙ্গে এখানে কাজের কোনও সম্পর্ক নেই। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার তাঁর আমলেও একটি নির্দেশনামা জারি করেছিলেন। তা হল কর্মচারীরা প্যান্টের পকেটে হাত রাখতে পারবেন না।

সরকারি পোশাক বিধি নিয়ে প্রথম বিতর্ক শুরু হয়ে 2015 সালে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে দেখা করার সময় বস্তারের তৎকালীন কালেক্টর চেক শার্ট আর সানগ্লাস পড়ে হ্যান্ডশেক করেছিলেন। সে নিয়ে বিস্তর বিতর্ক হয়েছিল। এবার বিপ্লব দেবের নির্দেশ নিয়েও তুমুল হইচই ত্রিপুরা জুড়ে।