মায়ের বিরুদ্ধে ছেলেকে খুনের অভিযোগ, চুঁচুড়ায় চাঞ্চল্য

এসবিবি: ছেলেকে খুনের অভিযোগ উঠল মায়ের বিরুদ্ধে। নৃশংস খুনের অভিযোগ তুলে সরব হলেন নিহতের মামা। ব্যান্ডেল বিদ্যা মন্দির স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্র ছিল প্রীতম মুখোপাধ্যায়। এই ঘটনায় জোরালো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে চুঁচুড়ার কোদালিয়া এলাকায়। জানা গেছে, 11 সেপ্টেম্বর প্রাইভেট পড়তে গিয়ে নিঁখোজ হয় প্রীতম। সারা রাত খোঁজাখুজি করেও প্রীতমের কোনও সন্ধান মেলেনি। হুগলি স্টেশন এলাকার একটি ঝিল থেকে উদ্ধার হল তাঁর মৃতদেহ। যেভাবে প্রীতমকে খুন করা হয়েছে তাতে মাকে কাঠগড়ায় তুলেছে মামা সুব্রত হালদার। কেন এভাবে ছেলেকে খুন করল মা? চারবছর আগে প্রীতমের বাবা পবিত্র মুখোপাধ্যায়কে ছেড়ে তপতী চঞ্চল জানাকে বিয়ে করে। সেইথেকে মামার বাড়িতেই মানুষ হচ্ছিল প্রীতম। ছেলেকে নিজের কাছে রাখতে চেয়ে চাপ বাড়ায় তপতী দেবী। সেজন্য সে হুমকি দিত বলে অভিযোগ। মামলাও করে তপতী। আগে ছেলেকে খুনের হুমকিও দেয় সে। স্কুলে যাওয়ার পথে প্রীতমকে মারধরও করে বলে অভিযোগ। ভয়ে একমাস স্কুল যাওয়াও বন্ধ করে দেয় নবম শ্রেণির ছাত্রটি। হামলা-হুমকির পর মাই ছেলেকে খুন করেছে বলে অভিযোগ প্রীতমের মামার। চুঁচুড়া থানার পুলিশ দেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তে পাঠিয়েছে। খুনের অস্বাভাবিক মামলা রুজু করে তদন্তও শুরু হয়েছে।