নিত্যদিনের মতোই চেনা ছবি বনধের দ্বিতীয় দিনে

এসবিবি: বাম শ্রমিক সংগঠনগুলি ডাকা 48 ঘণ্টা বনধের দ্বিতীয় দিনে শিয়ালদহ দক্ষিণ শাখায় সকাল থেকেই ট্রেন চলাচল ব্যহত। একাধিক লাইনে রেল পরিষেবা ব্যাহত হয়েছে। ওভারহেডের তারে কলাপাতা ফেলে ট্রেন অবরোধ করা হয়েছে
দক্ষিণ বারাসত, মথুরাপুরে বিঘ্নিত রেল পরিষেবা। কাকদ্বীপ শাখাতেও বনধের প্রভাব পড়েছে। নেতড়া-বাসুলডাঙায় রেললাইনের ওভার হেডে কলাপাতা ফেলে রেল অবরোধ করা হয়। লক্ষ্মীকান্তপুর-নামখানা-ডায়মন্ডহারবার শাখায় ব্যহত রেল পরিষেবা।
বারাকপুরে বনধের দ্বিতীয় দিনে সব মিলগুলিই বন্ধ রয়েছে।

ছবি– সৌগত সরকার

আরও পড়ুন-  তিন রাজ্যে হারের পরই সংরক্ষণে তাড়াহুড়ো বিজেপির
হাওড়া ব্রিজেও স্বাভাবিক রয়েছে যান চলাচল। নিত্য দিনের মতোই চেনা ছবি  মৌলালিতে।
তবে বহরমপুরে বনধের প্রভাব পড়েনি। সরকারি বাসের পাশাপাশি বেসরকারি বাস চলছে। ট্রেন চলছে স্বাভাবিক। গতকাল বিক্ষিপ্ত অশান্তি হলেও আজ কিন্তু কর্মব্যস্ত ছবিটাই দেখা দিচ্ছে।একই ছবি বাঁকুড়াতেও। বনধের দ্বিতীয় দিনে বাস চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে কিন্তু যাত্রী সংখ্যা একেবারে হাতে গোনা। ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক থাকলেও যাত্রী কম। সকাল থেকে স্কুল খুললেও ছাত্র-ছাত্রীর উপস্থিতি কম।

আরও পড়ুন- বনধে সরকারি কর্মীদের অনুপস্থিতি খতিয়ে দেখার নির্দেশ নবান্নের তরফে

হুগলিতে দ্বিতীয় দিনে বনধেও স্বাভাবিক ছবি। গতকাল রেল পরিষেবা বিভিন্ন জায়গায় ব্যহত হলেও এদিন কোনও রকম অপ্রীতিকর ঘটনা এখনও ঘটেনি।পূর্ব বর্ধমানেও বনধের দ্বিতীয় দিনে স্বাভাবিক পরিস্থিতি। কার্জন গেট বীরহাটা, স্টেশন মোড়ে প্রচুর পুলিস মোতায়েন রয়েছে। সকাল থেকেই মানুষ উপেক্ষা করে মানুষ রাস্তায় নেমেছে। রেল ও বাস পরিষেবা স্বাভাবিক রয়েছে। বনধের প্রভাব পড়েনি শিলিগুড়িতেও।