যাঁরা এখনও তৃণমূলের সমর্থক নন, তাঁরাও ব্রিগেড চলুন: কুণাল

এসবিবি: “তৃণমূল সমর্থকরা তো ব্রিগেডে যাবেনই, তার বাইরে যাঁরা রয়েছেন, এমনকি অন্যদলের সমর্থকরাও 19 তারিখের সমাবেশে চলুন।” প্রচারসভা থেকে ডাক দিলেন প্রাক্তন সাংসদ কুণাল ঘোষ। সভায় ছিলেন উত্তর কলকাতা যুব তৃণমূল সভাপতি জীবন সাহা, কার্যনির্বাহী সভাপতি সৌম্য বক্সি, বিধায়ক স্মিতা বক্সি, তৃণমূল ছাত্র পরিষদের রাজ্য সহসভাপতি মণিশঙ্কর মন্ডল, ছাত্রনেতা তমোঘ্ন, আবীর, সঞ্জয় মিশ্র, অভিষেক মিশ্র প্রমুখ। ভিড় উপচে পড়া সভায় কুণাল ব্যাখ্যা করেন কে এবারের ব্রিগেড জাতীয় রাজনীতিতে গুরুত্ব হয়ে এখন বিকল্প শক্তির ভরকেন্দ্র। দিল্লিকে তাকিয়ে থাকতে হচ্ছে বাংলার দিকে,এই ঐতিহাসিক মুহূর্তটি দেখতে ব্রিগেড চলুন।

বাম সমর্থকদের কুণাল বলেন, “আপনাদের দল সুযোগ এলেও দিল্লির দায়িত্ব নেয় না, বাংলার স্বার্থে কাজ করে দেখায় না, সরকারে যায় না, সংসদীয় গণতন্ত্রে তাদের সমর্থন করে কী হবে? ব্রিগেডে এসে দিল্লি দখলের লড়াইতে সামিল হোন। কংগ্রেস কর্মীরাও চলুন, কারণ তৃণমূলনেত্রীর ডাকে সাড়া দিয়ে আপনাদের দলের লোকসভার নেতা আর রাজ্যসভার সদস্য আসছেন। বিজেপি কর্মীরা ভাবুন, তৃণমূলের বাতিলদের পিছনে যদি লাইন দিতে হয়, তার থেকে সরাসরি তৃণমূলের সমাবেশে থাকাটাই সম্মানজনক নয় কি?” কুণাল এদিনও বলেন,” কারুর কোনো ক্ষোভ থাকলেও দলের গন্ডির বাইরে যাবেন না।” মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাশাপাশি অভিষেকের প্রশংসা করে তিনি বলেন,” নেতৃত্বে র যোগ্য হিসেবে নিজেকে গড়ে তুলছে অভিষেক। সিপিএমের মত নেতৃত্বের সঙ্কটে পড়তে হবে না তৃণমূলকে। নেত্রী আরও বড় দায়িত্ব নিন। দল এগিয়ে নিতে পরের প্রজন্ম প্রস্তুত।”