শবরীমালায় এ পর্যন্ত 51 নিষিদ্ধ বয়সের মহিলা ঢুকেছেন, সুপ্রিম কোর্টে পিনারাই সরকার

এসবিবি : এখনও পর্যন্ত নিষিদ্ধ বয়সের প্রায় 51 জন মহিলা প্রবেশ করেছেন শবরীমালায়। সুপ্রিমকোর্টে হলফনামা দিয়েই কেরলের পিনারাই বিজয়নের সরকার এই তথ্য জানিয়েছে। সরকারের এই দাবি কেরলে নতুন করে ঝড় তুলবে নিঃসন্দেহে। সরকার একাধিক উপায়ে প্রায় 51 জন মহিলাকে নিরাপত্তা দিয়ে মন্দিরে প্রবেশের ব্যবস্থা করে দিয়েছে। গত 28 সেপ্টেম্বর সব বয়সের মহিলাদের জন্য মন্দিরের দরজা উম্মুক্ত করে দেওয়ার নির্দেশ দেয় শীর্ষ আদালত।

আরও পড়ুন- বিয়ের আসরে গুলি, আহত কনে

ঘোষণার পর থেকেই বিক্ষোভের ঝড় ওঠে কেরল জুড়ে। রাস্তায় নামে বিভিন্ন কট্টরবাদী হিন্দু সংগঠনের সদস্যরা। সম্প্রতি, 3 জন 50 বছরের কম বয়সী মহিলা মন্দিরে প্রবেশ করে পুজো দেন। যাদের একজন ছিলেন শ্রীলঙ্কার নাগরিক। বাকি দুজনের নাম বিন্দু আম্মিনি ও কনক দুর্গা। তাঁরা সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, মৃত্যুভয় উপেক্ষা করেই প্রবেশ করেছিলাম। কেননা, এটা আমাদের অধিকার। আমরা যা করেছি তার জন্য আমরা গর্বিত।

আরও পড়ুন- পান মশলার বিজ্ঞাপনে যুক্ত হওয়ায় ট্রোলড অনুষ্কা শর্মা

আমাদের দেখে আরও অনেক ঋতুমতী মহিলা মন্দিরে যাওয়ার কথা ভাববেন। যদিও, মন্দিরে প্রবেশের অপরাধে নিজেদের পরিবারের সদস্যদের হাতেই আক্রান্ত হতে হয়েছে তাঁদের। এই পরিস্থিতিতে কেরল সরকারের 51 জন নিষিদ্ধ বয়সের মহিলার প্রবেশের দাবি নতুন করে ঝড় তুলবে নিঃসন্দেহে।

আরও পড়ুন- মেলবোর্নে ধোনি ঝড়, অজিদের টপকে সিরিজ জিতল ভারত