কাঁথির তৃণমূল অঞ্চল সভাপতির নলিকাটা দেহ উদ্ধার হুগলির দাদপুরে

এসবিবি : তিন দিন নিখোঁজ থাকার পর রবিবার উদ্ধার হল কাঁথির দাপুটে নেতা রীতেশ রায়ের দেহ। কাঁথিতে অমিত শাহের সভার পর থেকেই নিখোঁজ ছিলেন শুভেন্দু অধিকারি-ঘনিষ্ট এই নেতা। মৃত রীতেশ রায় কাঁথি 3 নম্বর পঞ্চায়েত সমিতির দুরমুঠ এলাকার অঞ্চল সভাপতি ছিলেন। রবিবার তাঁর নলিকাটা দেহ উদ্ধার হয় হুগলির দাদপুর এলাকা থেকে। দাদপুরের তালচিনান গ্রামে চুঁচুড়া-তারকেশ্বর রোডের ধারে দেহ পড়েছিল বলে জানিয়েছে পুলিস।
গত 7 ফেব্রুয়ারি তিনি বাড়ি থেকে বেরিয়েছিলেন কোলাঘাট যাবেন বলে। রাত হলেও বাড়ি না ফেরায় তাঁকে ফোন করেন তাঁর স্ত্রী। তখন রীতেশ স্ত্রীকে বলেন, পরিচিত এক বন্ধু শৌভিক চক্রবর্তী বাড়িতে তিনি গিয়েছেন। তার বাবার হার্ট অ্যাটাক হয়েছে। তাঁর দেশের বাড়ি যাচ্ছেন মালদহে। তার পর থেকে ফোন বন্ধই ছিল রীতেশের। যে বন্ধুর কথা রীতেশ বলেছিলেন তার ফোনও বন্ধ ছিল। মারিশদা থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়। রবিবার দাদপুর থানা থেকে রীতেশের পরিবারের লোকজনকে ডাকা হয়। সেখানে এক ব্যক্তির নলিকাটা দেহ দেখান হয় পরিবারের সদস্যদের। দাদপুর থানায় গিয়ে ছবির নলিকাটা ব্যক্তিকে নিজের বাবা বলে সনাক্ত করেন রীতেশের ছেলে। রীতেশের ছেলে বলেন, ছবিতে দেখা ব্যক্তির দেহ বাবারই।