উর্জিতের পথে হেঁটেই এবার ইস্তফা দিলেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ডেপুটি গভর্নর

এসবিবি: এবার ইস্তফা দিলেন বিরল আচার্য। তিনি ছিলেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ডেপুটি গভর্নর। ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে ইস্তফা দিলেন তিনি। গত ডিসেম্বরে এভাবেই “ব্যক্তিগত” কারণ দেখিয়ে ইস্তফা দিয়েছিলেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের তৎকালীন গভর্নর উর্জিত প্যাটেল। উর্জিতের পথে হেঁটেই এবার মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার 6 মাস আগেই ইস্তফা দিলেন বিরল আচার্য।

এদিকে, রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ডেপুটি গভর্নর বিরল আচার্যের ইস্তফার কারণ নিয়ে জোর জল্পনা তৈরি হয়েছে ওয়াকিবহাল মহলে। বিজনেস স্ট্যান্ডার্ডের প্রতিবেদন অনুযায়ী, অগস্টেই নিউ ইয়র্ক ইউনিভার্সিটি স্টার্ন স্কুল অব বিজনেস-এ ফের যোগদান করছেন বিরল আচার্য। যদিও আগামী বছর ফেব্রুয়ারিতে তাঁর যোগদানের কথা ছিল।

আরও পড়ুন-ভুয়ো মৃত্যু সংবাদ নিয়ে ভিক্টরের প্রতিক্রিয়া: “আমি আরও জনপ্রিয় হয়ে গেলাম”

উল্লেখ্য, উর্জিত প্যাটেলও মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে কেন্দ্রের সঙ্গে বিভিন্ন ইস্যুতে মনোমালিন্য হওয়ার কারণে উর্জিত প্যাটেল ইস্তফা দেন বলে জানা যায়। যদিও, তিনি ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়েই ইস্তফা দিয়েছিলেন। গত বছর কেন্দ্র ও রিজার্ভ ব্যাঙ্কের সঙ্গে বিবাদের সূত্রপাত শুরু হয়েছিল এই বিরল আচার্যের মন্তব্য থেকে। তিনি এক অনুষ্ঠানে কেন্দ্রের সমালোচনা করে বলেছিলেন, স্বশাসিত প্রতিষ্ঠানে নাক গলালে বিপর্যয়ের মুখে পড়তে পারে দেশ। শীর্ষ ব্যাঙ্কের রাজকোষের ভাগ চেয়েছিল কেন্দ্র। নির্বাচনের আগে দেশের নগদ সঙ্কট কাটাতে কেন্দ্রের এই প্রচেষ্টার বিরোধিতা করেন তৎকালীন গভর্নর উর্জিত প্যাটেলও। বিরল আচার্যও ছিলেন সেই তালিকায়।

সূত্রের খবর, রিজার্ভ ব্যাঙ্কের আরেক ডেপুটি গভর্নর এনএস বিশ্বনাথনের আগামী জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহেই মেয়াদ শেষ হচ্ছে। আরবিআইয়ের এগজিকিউটিভ ডিরেক্টর মাইকেল পাত্র এবং অর্থমন্ত্রকের প্রধান উপদেষ্টা সঞ্জীব স্যান্যাল বিরল আচার্যের স্থলাভিষিক্ত হতে পারেন।

আরও পড়ুন-বারমেঢ়ে প্যান্ডেল ভেঙে মৃত 14,আহত 50